জয়নগর মজিলপুর পৌরসভা

ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের একটি পৌরসংস্থা

জয়নগর মজিলপুর পৌরসভা হল ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের দক্ষিণ চব্বিশ পরগনা জেলার অন্তর্গত জয়নগর মজিলপুর শহরের একটি স্থানীয় স্বায়ত্ত্বশাসন সংস্থা। এটি একটি বিধিবদ্ধ সরকারি সংস্থা। জয়নগর মজিলপুর পৌরসভা ১৪ টি প্রশাসনিক ওয়ার্ডে বিভক্ত। জয়নগর মজিলপুর শহরের ৫.৮৫ বর্গকিলোমিটার (২.২৬ মা) অঞ্চলের পৌর পরিষেবা দেওয়া ও নগরাঞ্চলের উন্নয়ন জয়নগর মজিলপুর পৌরসভার প্রাথমিক দায়িত্ব।[১][২]

জয়নগর মজিলপুর পৌরসভা
Jaynagar Majilpur Municipality.jpg
জয়নগর মজিলপুর পৌরসভা
সংক্ষেপেজেএমএম
গঠিত১ এপ্রিল ১৮৬৯; ১৫১ বছর আগে (1 April 1869)
ধরনপৌরসভা
সদরদপ্তরজয়নগর
দাপ্তরিক ভাষা
বাংলা, ইংরেজি
পৌরপ্রধান
সুজিত সরখেল
উপ পৌরপ্রধান
তূষার কান্তি রায়
ওয়েবসাইটwww.jaynagarmajilpurmunicipality.com

ভূগোলসম্পাদনা

জয়নগর মজিলপুর পৌরসভাটি ২২°১০′৩০″ উত্তর ৮৮°২৫′১২″ পূর্ব / ২২.১৭৫০° উত্তর ৮৮.৪২০১° পূর্ব / 22.1750; 88.4201 দ্রাঘিমাংশে অবস্থিত। সমুদ্রপৃষ্ঠ হতে এটির গড় উচ্চতা হল ৮ মিটার (২৬ ফু)।

ইতিহাসসম্পাদনা

১৮৬৯ সালের ১ লা এপ্রিল জয়নগর, মজিলপুর ও আরও ৪-৫টি ছোটো ছোটো অঞ্চল (চাঁপাতলা, হাসানপুর, গহেরপুর, ইত্যাদি) নিয়ে জয়নগর মজিলপুর পৌরসভা গঠিত হয়েছিল। এটি সারা দেশের প্রাচীনতম পৌরসভাগুলির মধ্যে অন্যতম। ১৮৬৯ সালে বেঙ্গল মিউনিসিপাল অ্যাক্ট কার্যকর হওয়ার সাথে সাথে জয়নগর মজিলপুর পৌরসভা গঠিত ও অনুমোদিত হয়। তার আগে ১৮৬৪ সালে যে জয়নগর টাউন কমিটি গড়ে উঠেছিল, তার সভাপতি ছিলেন তৎকালের অন্যতম শ্রেষ্ঠ সাপ্তাহিক পত্রিকা 'সোমপ্রকাশ'এর সম্পাদক পণ্ডিত দ্বারকানাথ বিদ্যাভূষণের (১৮১৯-১৮৮৬) ভাগিনেয় তথা বাংলার নবজাগরণের অন্যতম পথিকৃৎ পণ্ডিত শিবনাথ শাস্ত্রীর (১৮৪৭-১৯১৯) পিতা পণ্ডিত হরানন্দ বিদ্যাসাগর (১৮২৭-১৯১২)। ১৮৬৯ সালে সদ্যগঠিত পৌরসভার পৌরপ্রধানের পদও তিনি অলঙ্কৃত করেন।

গঠনসম্পাদনা

জয়নগর মজিলপুর পৌরসভার সদস্যরা শহরের জনসাধারণ কর্তৃক প্রত্যক্ষভাবে পাঁচ বছরের মেয়াদে নির্বাচিত হন। এই পৌরসভাটি জনসংখ্যার ভিত্তিতে ১৪ টি প্রশাসনিক ওয়ার্ডে বিভক্ত। এক এক জন পৌরপ্রতিনিধি এক-একটি ওয়ার্ড থেকে নির্বাচিত হন। নির্বাচিত পৌরপ্রতিনিধিরা নিজেদের মধ্যে থেকে একজন পৌরপ্রতিনিধিকে পৌরপ্রধান হিসেবে নির্বাচিত করেন। সরকারি আধিকারিকরা তাদের কাজে সহায়তা করেন।

নির্বাচনসম্পাদনা

২০১৫ পৌরনির্বাচন অনুসারে জয়নগর মজিলপুর পৌরসভাটি বর্তমানে ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেসের নিয়ন্ত্রণাধীন। ওই পৌরনির্বাচনে এই পৌরসভাটি ত্রিশঙ্কু অবস্থার সম্মুখীন হয়। ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস, সর্বভারতীয় তৃণমূল কংগ্রেস, এসইউসিআই(সি)সিপিআই(এম) যথাক্রমে ৬ টি, ৪ টি, ২ টি ও ১ টি ওয়ার্ডে জয়লাভ করেছিল। এছাড়া অপর ১ টি ওয়ার্ডে একজন নির্দল প্রার্থী জয়লাভ করেছিল। পরবর্তীকালে ছয়জন কাউন্সিলর বিশিষ্ট ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস একজন সিপিআই(এম) কাউন্সিলর ও একজন নির্দল কাউন্সিলরের সমর্থন নিয়ে পৌরবোর্ড গঠন করেছিল।[৩][৪]

পরিষেবাসম্পাদনা

জয়নগর মজিলপুর পৌরসভা শহরের প্রশাসন ও মৌলিক পরিকাঠামো উন্নয়নের দায়িত্বপ্রাপ্ত:

  • জল পরিশোধন ও সরবরাহ,
  • বর্জ্য নিষ্কাশন,
  • কঠিন বর্জ্য অপসারণ ও রাস্তা পরিষ্কার,
  • রাস্তা ও ফ্লাইওভার নির্মাণ,
  • রাস্তায় আলোর ব্যবস্থা,
  • উদ্যান ও মুক্ত এলাকাগুলির পরিচর্যা,
  • শ্মশানঘাট ও কবরখানা রক্ষণাবেক্ষণ,
  • জন্ম ও মৃত্যু নথিভুক্তি
  • হেরিটেজ সংরক্ষণ,
  • রোগ নিয়ন্ত্রণ ও টীকাকরণ,
  • পৌর বিদ্যালয় পরিচালনা ইত্যাদি।

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "জয়নগর মজিলপুর পৌরসভা"পৌর ও নগরোন্নয়ন দফতর। পশ্চিমবঙ্গ সরকার। ২১ এপ্রিল ২০১৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৮ মে ২০১৫ 
  2. "কলকাতা মেট্রোপলিটান ডেভেলপমেন্ট অথরিটি"। কেএমডিএ। ২৮ সেপ্টেম্বর ২০০৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১ সেপ্টেম্বর ২০০৭ 
  3. "পৌর নির্বাচনের ফলাফল"২০১৫ পৌর নির্বাচন। পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য নির্বাচন কমিশন। সংগ্রহের তারিখ ৪ জুলাই ২০১৭ 
  4. "পৌর নির্বাচনগুলির ফলাফল"বছর অনুযায়ী পৌর নির্বাচন। পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য নির্বাচন কমিশন। সংগ্রহের তারিখ ১১ জুলাই ২০১৭ 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা