জনাথন প্রাইস

ব্রিটিশ অভিনেতা

জনাথন প্রাইস (ইংরেজি: Jonathan Pryce; জন্ম: ১লা জুন ১৯৪৭) হলেন একজন ওয়েলসীয় অভিনেতা ও গায়ক। তিনি তার ভিন্নধর্মী কাজের জন্য সমাদৃত।[১] মঞ্চে তার কাজের স্বীকৃতি হিসেবে তিনি দুটি টনি পুরস্কার, দুটি লরন্স অলিভিয়ে পুরস্কার ও একটি ড্রামা ডেস্ক পুরস্কার অর্জন করেন। এছাড়া ক্যারিংটন চলচ্চিত্রে তার কাজের জন্য তিনি শ্রেষ্ঠ অভিনেতা বিভাগে কান চলচ্চিত্র উৎসব পুরস্কার লাভ করেন।

জনাথন প্রাইস

Jonathan Pryce
Jonathan Pryce Cannes 2018.jpg
জন্ম
জন প্রাইস

(1947-06-01) ১ জুন ১৯৪৭ (বয়স ৭২)
কারমেল, ফিন্টশায়ার, ওয়েলস
জাতীয়তাব্রিটিশ
যেখানের শিক্ষার্থীরয়্যাল একাডেমি অব ড্রামাটিক আর্ট
পেশাঅভিনেতা
কার্যকাল১৯৭০-বর্তমান
দাম্পত্য সঙ্গীকেট ফ্যাহি (বি. ২০১৫)
সন্তান
পুরস্কারপূর্ণ তালিকা

রয়্যাল একাডেমি অব ড্রামাটিক আর্টে পড়াশুনা করার সময়ে তার দীর্ঘ সময়ের বান্ধবী ও পরে স্ত্রী ইংরেজ অভিনেত্রী কেট ফ্যাহির সাথে তার সাক্ষাৎ হয়। ১৯৭০-এর দশকে তিনি মঞ্চে কাজ শুরু করেন। রয়্যাল কোর্ট থিয়েটারে হ্যামলেট মঞ্চনাটকে নাম ভূমিকায় অভিনয়ের জন্য তিনি শ্রেষ্ঠ অভিনেতা বিভাগে টনি পুরস্কার অর্জন করেন। এই অর্জনের পর তিনি কয়েকটি চলচ্চিত্র ও টেলিভিশনে পার্শ্ব ভূমিকায় অভিনয় করেন। তার একটি উল্লেখযোগ্য চলচ্চিত্র ভূমিকা ছিল টেরি গিলিয়াম পরিচালিত ১৯৮৫ সালের কাল্ট চলচ্চিত্র ব্রাজিল

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "Jonathan Pryce Confirmed To Step Into 'Dirty Rotten Scoundrels'"ব্রডওয়ে ওয়ার্ল্ড (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ১ জুন ২০১৮ 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা