চাঁদপুর সরকারি কলেজ

চাঁদপুর জেলার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান।

চাঁদপুর সরকারি কলেজ বাংলাদেশের চাঁদপুর জেলার একটি পুরোনো ও ঐতিহ্যবাহী শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। এ কলেজটি ১৯৪৬ সালের ১৫ জুন প্রতিষ্ঠিত হয়। কলেজটি চাঁদপুর সদরের ১৬.৫৬ একর জমির উপর চাঁদপুর শহরে অবস্থিত। জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ৬ সেপ্টেম্বর ২০২২ চট্টগ্রাম বিভাগীয় র‍্যাংকিংয়ে ৯ম স্থানে উত্তীর্ণ হওয়ার স্বীকৃতি পায়।

চাঁদপুর সরকারি কলেজ
Chandpur Gov't college Main gate-2021.jpg
চাঁদপুর সরকারি কলেজের প্রধান গেট-২০২১
অন্যান্য নাম
চাঁদপুর কলেজ
নীতিবাক্যশিক্ষা ইমান সেবা
ধরনসরকারি কলেজ
স্থাপিত১৫ জুন,১৯৪৬
প্রতিষ্ঠাতাহোসেন শহীদ সোহ্‌রাওয়ার্দী
অধিভুক্তিজাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়
অধ্যক্ষঅধ্যাপক অসিত বরণ দাস
শিক্ষার্থী১৪,০০০+
ঠিকানা
কলেজ রোড, নাজিরপাড়া, চাঁদপুর সদর
, ,
শিক্ষাঙ্গনশহুরে, ৬.৭০ হেক্টর (১৬.৫৬ একর)
ভাষাবাংলাইংরেজি
সংক্ষিপ্ত নামচাঁসক
ওয়েবসাইটwww.chandpurcollege.edu.bd

প্রতিষ্ঠার পটভূমিসম্পাদনা

চাঁদপুর সরকারি কলেজের ভিত্তিপ্রস্তর হয় ১৯৪৬ সালের ১ জুন। যা তৎকালীন অভিবক্ত বাংলার মুখ্যমন্ত্রী হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দী করেছিলেন। প্রথমে কলেজের বর্তমান পশ্চিম পাশে বাঁশের বেড়া দিয়ে কলেজের কার্যক্রম চালু করা হয়। পরবর্তীতে চাঁদপুর জেলার বিভিন্ন দানশীল ব্যক্তির অনুদানে কলেজটির অবকাঠামোগত দিক উন্নত হয়। কলেজটির প্রথম শিক্ষাকার্যক্রম চালু হয় উচ্চ মাধ্যমিক দিয়ে ১৯৪৬ সালে। আর প্রথম অধ্যক্ষ ছিলেন বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ পরেশ চন্দ্র গাঙ্গুলী। [১] ১ মার্চ, ১৯৮০ সালে কলেজটি সরকারি করণ করা হয়।

অনুষদ ও বিভাগসমুহসম্পাদনা

এই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ২ বছর মেয়াদী উচ্চ মাধ্যমিক শ্রেণী ও ৩ বছর মেয়াদী স্নাতক (পাস) শ্রেণীতে শিক্ষা দান করা হয়। এছাড়াও এখানে বেশ কয়েকটি বিষয়ে স্নাতক (সম্মান) ও স্নাতকোত্তর ডিগ্রী প্রদান করা হয়।

উচ্চমাধ্যমিক শ্রেণিসম্পাদনা

স্নাতক (পাস) শ্রেণিসম্পাদনা

স্নাতক (সম্মান) শ্রেণিসম্পাদনা

কলেজটিতে মোট ১৭টি বিষয়ে অনার্স ও ১৬টি বিষয়ে মাস্টার্স কোর্স চালু আছে। সেগুলো হলো:

একাডেমিক সুযোগ সুবিধাসম্পাদনা

কলেজটিতে বিভিন্ন ধরনের একাডেমিক সুযোগ সুবিধা রয়েছে। যেমন একাডেমিক ভবন, গ্রন্থাগার ইত্যাদি। এছাড়া এখানে পড়াশুনার পাশাপাশি মেধাবী শিক্ষার্থীদের জন্য রয়েছে বৃত্তির ব্যবস্থা।

একাডেমিক ভবনসম্পাদনা

কলেজটিতে মোট পাঁচটি ভবন রয়েছে।

  • মূল ভবন
  • একাডেমিক ভবন
  • ভবন -২
  • ভবন -৩
  • রাজু ভবন

গ্রন্থাগারসম্পাদনা

মূল ভবনে একটি কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগার অবস্থিত। এখানে ছাত্র এবং ছাত্রীদের আলাদা রুমে পড়ার সুযোগ রয়েছে। ১৫০ (প্রায়) শিক্ষার্থী একসাথে পড়তে ও বই সংগ্রহ করতে পারে। গ্রন্থাগারে ৩০০০০+ বই সংগৃহীত আছে। নিয়মিত জাতীয় ও স্থানীয় দৈনিক সমূহ সংগ্রহ করা হয়।

বোটানিক্যাল গার্ডেনসম্পাদনা

চাঁদপুর সরকারি কলেজের পুরো ক্যাম্পাস জুড়ে রয়েছে বিভিন্ন রকম ফুল গাছের সমাহার যা ক্যাম্পাসের সৌন্দর্য বর্ধন করেছে।

কলেজের সুযোগ সুবিধাসম্পাদনা

কলেজটিতে বিভিন্ন ধরনের সুযোগ সুবিধা রয়েছে। ছাত্রছাত্রীদের থাকার জন্য রয়েছে হোস্টেল, ছাত্রছাত্রীদের খেলার জন্য রয়েছে এক বিশাল খেলার মাঠ এবং মসজিদ।

আবাসিক হলসমূহসম্পাদনা

ছাত্রদের জন্য রয়েছে দুটি হল-

  • শহীদ জিয়া ছাত্রাবাস।
  • শেরে-বাংলা ছাত্রাবাস।

ছাত্রীদের জন্য রয়েছে দুটি হল-

  • শেখ হাসিনা ছাত্রী নিবাস।
  • বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন্নেসা মুজিব ছাত্রী নিবাস।

যাতায়াত ব্যবস্থাসম্পাদনা

কলেজের ছাত্র ও ছাত্রীদের জন্য রয়েছে একটি বাস আছে যা চাঁদপুর-হাজীগঞ্জ রুট হতে ছাত্র/ছাত্রীদের কলেজ ক্যাম্পাসে নিয়ে আসে এবং ক্যাম্পাস হতে নিয়ে যায়। এছাড়াও অনেকে বাস, ট্রেন এবং অন্যান্য যানবাহন দিয়ে ছাত্র/ছাত্রীরা কলেজ ক্যাম্পাসে আসা যাওয়া করে থাকে।

খেলার মাঠসম্পাদনা

কলেজের নিজস্ব এক বিশাল মাঠ রয়েছে যেখানে ক্রিকেট, ফুটবল সহ বিভিন্ন খেলার পাশাপাশি বাস্কেটবল খেলার জন্য আলাদা কোর্ট রয়েছে।

মসজিদসম্পাদনা

কলেজের নিজস্ব একটি মসজিদ রয়েছে যার নাম চাঁদপুর সরকারি কলেজ কেন্দ্রীয় মসজিদ।

সহশিক্ষা কার্যক্রমসম্পাদনা

চাঁদপুর সরকারি কলেজে বর্তমানে বিভিন্ন ধরনের সহশিক্ষা কার্যক্রম চালু রয়েছে:

ছাত্র সংগঠনসম্পাদনা

প্রাক্তন শিক্ষার্থীসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

বহিঃসংযোগসম্পাদনা