গিয়াসউদ্দিন বাহাদুর শাহ

প্রথম গিয়াসউদ্দিন বাহাদুর শাহ লখনৌতির সুলতান শামসউদ্দিন ফিরোজ শাহের পুত্র ও উত্তরাধিকারী ছিলেন। ১৩২২ থেকে ১৩২৪ পর্যন্ত স্বাধীন শাসক ও ১৩২৪ থেকে ১৩২৮ পর্যন্ত গভর্নর হিসেবে তিনি রাজ্য শাসন করেন।

ইতিহাসসম্পাদনা

পিতার জীবদ্দশায় গিয়াসউদ্দিন বাহাদুর শাহ মুদ্রা জারি করেন। পিতার মৃত্যুর পর ১৩২২ সালে তিনি ক্ষমতা লাভ করেন। দিল্লীর সুলতান গিয়াসউদ্দিন তুঘলক ১৩২৪ সালে তার বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করেন। যুদ্ধে পরাজিত হওয়ার পর তাকে বন্দী হিসেবে দিল্লী নেয়া হয়। এরপর বাংলা দিল্লী সালতানাতের একটি প্রদেশে পরিনত হয়।

একই বছর গিয়াসউদ্দিন তুঘলকের পুত্র ও উত্তরাধিকারী দিল্লীর সুলতান মোহাম্মদ বিন তুঘলক তাকে মুক্ত করে দেন ও সোনারগাঁওয়ের প্রাদেশিক গভর্নর হিসেবে নিয়োগ দেন। বাহাদুর শাহ গিয়াসপুর নামে একটি নতুন শহরের পত্তন করেন। এটি বর্তমান ময়মনসিংহ জেলার ২৫ কিমি. দক্ষিণ পশ্চিমে অবস্থিত ছিল।

১৩২৮ সালে তিনি স্বাধীনতা ঘোষণা করেন। তাকে দমনের জন্য সুলতান মোহাম্মদ বিন তুঘলক তার সেনাপতি বাহরাম খানকে প্রেরণ করেন। যুদ্ধে বাহাদুর শাহ পরাজিত ও নিহত হন। বাহরাম খান সোনারগাঁও পুনর্দখল করেন ও এর গভর্নর নিযুক্ত হন।[১]

আরও দেখুনসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "Ghiyasuddin Bahadur Shah in Banglapedia"। ৯ ডিসেম্বর ২০১১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১ জুলাই ২০১৩ 
পূর্বসূরী
শামসউদ্দিন ফিরোজ শাহ
সোনারগাঁওয়ের স্বাধীন সুলতান
১৩০১-১৩২৮
উত্তরসূরী
ফখরুদ্দিন মোবারক শাহ