ওয়াল-ই

২০০৮ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত এনিমেটেড চলচ্চিত্র

ওয়াল-ই (ইংরেজি: WALL-E) ২০০৮-এ মুক্তি পাওয়া আমেরিকান সিজিআই সায়ন্স ফিক্সন হাস্যকৌতুকমুলক অ্যানিমেশন চলচ্চিত্র যা প্রযোজনা করেছে পিক্সার অ্যানিমেশন স্টুডিও এবং পরিচালনা করেছেন এন্ড্রু স্টান্টন। এই চলচ্চিত্রটি মূলত ওয়াল-ই নামের একটি রোবটকে নিয়ে যাকে প্রোগ্রাম করা হয়েছে আবর্জনা পরিষ্কার করার জন্য। সে ভালোবাসায় পরে ইভ্‌ নামের এক রোবটের সাথে যাকে মহাকাশ থেকে মানুষেরা পাঠিয়েছে পৃথিবীতে প্রাণের অনুসন্ধানের জন্য। এই কার্যক্রম চলার মধ্যেই ওয়াল-ই ও ইভ্‌ রোমাঞ্চকর অভিযানে জড়িয়ে পরে। ফাইন্ডিং নিমু চলচ্চিত্র তৈরির মাধ্যমেই এন্ড্রু স্টানটন পিক্সারে বিশ্বাসযোগ্যতা অর্জন করেন।

ওয়াল-ই
ওয়াল-ই চলচ্চিত্রের পোস্টার.jpg
পোস্টার
পরিচালকএন্ড্রু স্টানটন
প্রযোজকজিম মরিস
চিত্রনাট্যকারএন্ড্রু স্টানটন
জিম রিয়েডোন
কাহিনীকারএন্ড্রু স্টানটন
পিটি ডকটর
শ্রেষ্ঠাংশেবেন বার্ট
এলিসা নাইট
জেফ্‌ গারলিন
ফ্রেড উইলার্ড
জন রাটযেনবারগার
ক্যাথি নাজিমী
সিগুনি ওয়েভার
মেশিনটক
সুরকারথোমাস নিউম্যান
চিত্রগ্রাহকজেরিমি লেসকি
ড্যানিয়েল ফাইনবার্গ
সম্পাদকস্টিফেন শেফার
প্রযোজনা
কোম্পানি
পরিবেশকওয়াল্ট ডিজনি স্টুডিওস
মোশন পিকচার্স
মুক্তি
দৈর্ঘ্য৯৮ মিনিট
দেশ যুক্তরাষ্ট্র
ভাষাইংরেজি
নির্মাণব্যয়১৮ কোটি মার্কিন ডলার[১]
আয়৫২,১৩,১১,৮৬০ মার্কিন ডলার [২]

ওয়াল-ইকে ওয়াল্ট ডিজনি পিকচার্স ২০০৮-এর ২৭ জুন যুক্তরাষ্ট্রকানাডায় যৌথভাবে মক্তি দেয়। এটি প্রথম দিনেই ২.৩২ কোটি ডলার এবং প্রথম সপ্তাহে ৬.৩১ কোটি ডলার আয় করে, যা একে বক্স অফিসের র‍্যাঙ্কে ১ নাম্বারে নিয়ে যায়। এটি বক্স অফিসের ৫ম চলচ্চিত্র যা মুক্তির প্রথম সপ্তাহেই এত আয় করে। ওয়াল-ইকেও পিক্সারের অন্যান্য চলচ্চিত্রের মতো একটি স্বল্প দীর্ঘের চলচ্চিত্রের সাথে যুগ্ম ভাবে মুক্তি দেয়া হয়।

কুশীলবসম্পাদনা

  • বেন বার্ট — ওয়াল-ই
  • এলিসা নাইট — ইভ
  • জেফ গার্লিন — ক্যাপ্টেন বি. ম্যাকক্রিয়া
  • ফ্রেড উইলার্ড — শেলবি ফোর্থনাইট
  • জন রেৎসেনবের্গার — ক্যাথি নাজিমি
  • সিগোর্নি ওয়েভার — অ্যাক্সিওম কম্পিউটারের কণ্ঠ

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. ব্রুক্স বার্নেস (২০০৮-০৬-০১)। "Disney and Pixar: The Power of the Prenup"দ্য নিউ ইয়র্ক টাইমস। সংগ্রহের তারিখ ২০০৯-০১-১২ 
  2. "WALL-E (2008)"বক্স অফিস মোজো। সংগ্রহের তারিখ ২০০৯-১০-০৫ 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা