ওভালটিন একটি দুগ্ধ গন্ধজাত মল্ট দ্বারা প্রস্তুত পানীয়। কখনো কখনো স্বাদ ও দেশ ভেদে এতে চিনি, হুইয়ী, কোকোয়া প্রভৃতি মিশ্রিত থাকে।

ওভালটিন
Ovaltine in can.jpg
ওভালটিন ক্যান
প্রকারমল্টেড দুগ্ধজাতীয় পানীয়
উৎপাদনকারীএসোসিয়েটেড ব্রিটিশ ফুডস্‌ বা লাইসেন্সধারী
(যুক্তরাষ্ট্রে নেসলে)
উৎপত্তিস্থলসুইজারল্যান্ড
পরিচয়কাল১৯০৪
প্রকারভেদChocolate Malt, Malt, Rich Chocolate
সংশ্লিষ্ট পণ্যহট চকোলেট, নেসকুইক, হরলিক্স

ইতিহাসসম্পাদনা

 
একটি মেডিকেল জার্নালে ওভালটিন বিজ্ঞাপন, ১৯০৯

ওভালটিন সুইজারল্যান্ডের বার্ন শহরে প্রথম 'ওভোমল্টাইন' নামে প্রস্তুত করা হয়; এর কিছু কাল পরবর্তীতেই এটি কয়েক কিলোমিটার দূরের গ্রাম নিউনেগ-এ স্থানান্তরিত হয় এবং অদ্যাবধি সেখান থেকেই এটি উৎপাদিত হচ্ছে।

১৯০৯ সালে 'ওভোমল্টাইন' ব্রিটেনে রপ্তানী করা হয় এবং সেখানে এটি রেজিস্ট্রেশন করার সময় ভুলবশত: নামের বানান ইংরেজি ভাষাভাষীদের নিকটে সংক্ষিপ্তাকারে 'ওভালটিন' হয়ে যায়।[১]

আন্তর্জাতিক গ্রহণযোগ্যতাসম্পাদনা

 
এক মগ ওভালটিন

ব্রিটেনসম্পাদনা

হংকংসম্পাদনা

মালয়শিয়াসম্পাদনা

ব্রাজিলসম্পাদনা

ব্রাজিলের চেইন ফাস্ট-ফুড বব'স্‌ ওভালটিন দ্বারা তৈরি মিল্কসেক ও সানডেইস তৈরি করে আসছে ১৯৫৯ সাল থেকে যা খুবই জনপ্রিয়তা অর্জন করেছে। ব্রাজিলের সাও পাওলো-তে রয়েছে ওভালটিনের দ্বিতীয় বৃহত্তম কারখানা এবং এই দেশটি ওভালটিনের দ্বিতীয় বৃহত্তম বাজার।

জনপ্রিয় সংস্কৃতিতেসম্পাদনা

আরও দেখুনসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "Histoire de Wander SA | Wander"www.wander.ch (ফরাসি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৫-১২ 

বহি:সংযোগসম্পাদনা