এস জনকী

ভারতীয় গায়িকা

সিস্তলা জনকী (জন্ম ২৩ এপ্রিল ১৯৩৮), যিনি এস জনকী নামে জনপ্রিয়, তিনি হলেন অন্ধ্রপ্রদেশ থেকে একজন ভারতীয় নেপথ্য সংগীতশিল্পী এবং সময় বিশেষে সংগীতকার। দক্ষিণ ভারতীয় নেপথ্য সংগীতশিল্পীদের মধ্যে তিনি সবচেয়ে পরিচিত এবং চলচ্চিত্র, অ্যালবাম, টেলিভিশন ও রেডিয়োতে একক, দ্বৈতকণ্ঠ এবং বৃন্দগান সব মিলিয়ে প্রায় ৪৮,০০০[১] গান রেকর্ড করেছিলেন। তিনি ২০টি ভাষায় গান গেয়েছেন যার মধ্যে ভারতের দেশীয় ভাষা কন্নড়, মালয়ালম, তামিল, তেলুগু, হিন্দি, উড়িয়া ভাষার[২] পাশাপাশি জাপানি এবং জার্মান ভাষাও রয়েছে। সেই ১৯৫৭ খ্রিষ্টাব্দ থেকে শুরু করে সুদীর্ঘ ছয় দশক তার সংগীত কর্মজীবন বিস্তৃত।

এস জনকী
S Janaki in Pune, India 2007.JPG
জন্ম
সিস্তলা জনকী

(1938-04-23) ২৩ এপ্রিল ১৯৩৮ (বয়স ৮৪)
জাতীয়তাভারতীয়
অন্যান্য নামদক্ষিণ ভারতের বুলবুল
পেশানেপথ্য সংগীতশিল্পী, কণ্ঠ সংগীতশিল্পী
কর্মজীবন১৯৫৭-২০১৭
দাম্পত্য সঙ্গীভি রামপ্রসাদ
(বিবাহিত জীবন ১৯৫৯-১৯৯৭)
(তাঁর মৃত্যু)
সন্তানমুরলি কৃষ্ণ (জন্ম ১৯৬০)
আত্মীয়গারিমেল্লা বালাকৃষ্ণ প্রসাদ (ভাইপো)
ওয়েবসাইটsjanaki.net

তিনি জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার এবং ৩৩টা অন্যান্য রাজ্য চলচ্চিত্র পুরস্কার অর্জন করেছেন।[৩] একজন স্বনামধন্য সংগীতশিল্পী হিসেবে বিশিষ্ট সংগীতশিল্পী এস পি বালাসুব্রহ্মনিয়াম এবং সংগীতকার ইলাইয়ারাজা এঁদের সঙ্গে তিনি সংযুক্ত ছিলেন। ১৯৬০, ১৯৭০ এবং ১৯৮০ খ্রিষ্টাব্দের দশকগুলোতে পি বি শ্রীনিবাস, এস পি বালাসুব্রহ্মনিয়াম এবং ড. রাজকুমার এই বিখ্যাত সংগীতশিল্পীদের সঙ্গে তার দ্বৈতকণ্ঠের কিছু রোমান্টিক গান তামিল এবং তেলুগু চলচ্চিত্র সংগীতের ইতিহাসে অমর হয়ে আছে।[৪]

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "S Janaki returns to playback singing"The Times of India। ৫ ডিসেম্বর ২০১৮। 
  2. "S. Janaki Odia Songs" 
  3. "Singing straight from the heart"The Hindu। Chennai, India। ৫ এপ্রিল ২০০৭। ১৪ ডিসেম্বর ২০০৭ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৩০ ডিসেম্বর ২০১০ 
  4. ""Kavidaye Padalaga," presented by poet and film lyricist Vairamuthu, this evening, will transform poetry into song"। The Hindu। ২৭ জুলাই ২০০৪। সংগ্রহের তারিখ ১১ আগস্ট ২০১২ [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]