আসাম রাইফেলস হচ্ছে ভারতের একটি অর্ধ-সামরিক বাহিনী; এটি একটি সীমান্তরক্ষী পদাতিক বাহিনী যেটার সদস্যরা ভারত-মায়ানমার সীমান্তে নিরাপত্তারক্ষী হিসেবে কাজ করে। ভারত যখন ব্রিটিশ শাসনাধীন তখন এই আসাম রাইফেলসের গোঁড়াপত্তন ঘটে ক্যাচার লেভি নামে। তখন থেকে এই বাহিনীর নাম পরিবর্তিত হতে থাকে বিভিন্ন নামে, ১৮৩৫ সালের ক্যাচার লেভি ১৮৮৩ সালে আসাম ফ্রন্টিয়ার পুলিশ নামে পরিবর্তিত হয়। ১৮৯১ সালে নাম হয় আসাম মিলিটারি পুলিশ, ১৯১৩ সালে এটার নাম হয় ইস্টার্ন বেঙ্গল অ্যান্ড আসাম মিলিটারি পুলিশ। ১৯১৭ সালে এর সর্বশেষ নাম হয় আসাম রাইফেলস যে নাম এখনো বিদ্যমান। প্রথম বিশ্বযুদ্ধে আসাম রাইফেলস মধ্যপ্রাচ্য এবং ইউরোপে যুদ্ধ করে এবং দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে এটি বার্মা অভিযানে অংশ নিয়েছিলো। ১৯৪৭ সালে ভারতের স্বাধীনতার পর থেকে আসাম রাইফেলসের মধ্যে ভারতীয়করণ শুরু হয়ে যায়। বর্তমানে আসাম রাইফেলসে ৪৩টি পদাতিক ব্যাটেলিয়ন রয়েছে এবং মোট সৈন্য আছে ৬০,০০০-এর কিছু বেশি।

আসাম রাইফেলস
আসাম রাইফেলসের চিহ্ন
আসাম রাইফেলসের চিহ্ন
নীতিবাক্যউত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় সীমান্ত সৈন্যরা
সংস্থা পরিদর্শন
প্রতিষ্ঠাকাল১৮৩৫
কর্মচারী৬৩, ৭৪৭ জন সৈন্য (প্রায়)[১]
বার্ষিক বাজেট৬,০৬১.৮৭ কোটি (US$ ৮১৮.৪ মিলিয়ন) (2020-21)[২]
অঞ্চল কাঠামো
যুক্তরাষ্ট্রীয় সংস্থাভারত
পরিচালনার অঞ্চল ভারত
পরিচালনা পর্ষদস্বরাষ্ট্র মন্ত্রক (ভারত); প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় (ভারত)
গঠন উপকরণ
  • আসাম রাইফেলস অ্যাক্ট ২০০৬ এবং রুলস ২০১০
সাধারণ প্রকৃতি
পরিচালনামূলক কাঠামো
প্রধান কার্যালয়শিলং
দায়বদ্ধ মন্ত্রী
সংস্থার কার্যনির্বাহক
  • লেঃ জেনারেল সুখদ্বীপ সংওয়ান[৩][৪], আসাম রাইফেলসের মহাপরিচালক
মাতৃ-সংস্থাভারতীয় সেনাবাহিনী
ওয়েবসাইট
assamrifles.gov.in

এই বাহিনী স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক (ভারত) দ্বারা পরিচালিত হয় যদিও প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় (ভারত)-এরও কিছু কাজ থাকে কারণ আসাম রাইফেলসে ভারতীয় সেনাবাহিনী থেকে কর্মকর্তারা ডেপুটেশনে আসেন। ব্যাটেলিয়ন পর্যায়ে সেনাবাহিনীর লেফটেন্যান্ট থেকে লেঃ কর্নেল এবং সেক্টর পর্যায়ে কর্নেল পদবী পর্যন্ত কর্মকর্তারা নিয়োগ পান আর রাইফেলস সদর দপ্তরে ক্যাপ্টেন থেকে সর্বোচ্চ লেঃ জেনারেল পদমর্যাদার কর্মকর্তা থাকেন, লেঃ জেনারেল রাইফেল বাহিনীর মহাপরিচালক হিসেবে নিয়োগপ্রাপ্ত হন।

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "Archived copy" (PDF)। ৮ আগস্ট ২০১৭ তারিখে মূল (PDF) থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১২ আগস্ট ২০১৭ 
  2. "Expenditure Budget - Ministry of Home Affairs - Police"Expenditure Budget | Union Budget of India। Ministry of Finance। ২৬ মে ২০২০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৬ জুন ২০২০ 
  3. "Lt Gen Sukhdeep Sangwan is the new Director General of Assam Rifles"। ১৪ মে ২০১৮। [স্থায়ীভাবে অকার্যকর সংযোগ]
  4. "Lt Gen Sukhdeep Sangwan takes over as DG of Assam Rifles"। ১৪ মে ২০১৮। 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা