প্রধান মেনু খুলুন

আব্দুল আজিজ (চলচ্চিত্র নির্মাতা)

বাংলা চলচ্চিত্র পরিচালক ও প্রযোজক

আব্দুল আজিজ হলো একজন বাংলাদেশি ব্যবসায়ী, চলচ্চিত্র প্রযোজক ও পরিচালক। তিনি জাজ মাল্টিমিডিয়ার চেয়ারম্যান।[১][২][৩]

আব্দুল আজিজ
Abdul Aziz (8).jpg
জন্ম
ঢাকা, বাংলাদেশ বাংলাদেশ
পেশা
  • পরিচালক
  • চলচ্চিত্র প্রযোজক
  • চিত্রনাট্যকার

চলচ্চিত্রের তালিকাসম্পাদনা

প্রযোজনাসম্পাদনা

চাবি   এই চলচ্চিত্রগুলি এখনও মুক্তি পায়নি
বছর চলচ্চিত্র অভিনয়ে টীকা
২০১৩ পোড়ামন সায়মন সাদিক,মাহিয়া মাহী মাইনা (২০১০) তামিল চলচ্চিত্রের পুনর্করণ
২০১৪ অগ্নি আরিফিন শুভ, মাহিয়া মাহী কলম্বিয়ানা (২০১১) ফ্রেঞ্চ চলচ্চিত্রের পুনর্করণ
২০১৪ অনেক সাধের ময়না বাপ্পি চৌধুরী,মাহিয়া মাহী ময়নামতি (১৯৬৯)- এর পুনর্করণ
দেশা: দ্য লিডার শিপন মিত্র,মাহিয়া মাহী এটি চারটি জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার জিতেছে।
২০১৫ রোমিও বনাম জুলিয়েট অঙ্কুশ হাজরা,মাহিয়া মাহী সিং বনাম কওয়র ২০১৩ পাঞ্জাবী চলচ্চিত্রের পুনর্করণ
অগ্নি ২ মাহিয়া মাহী,ওম
আশিকি অঙ্কুশ হাজরা,নুসরাত ফারিয়া মাজহার ইস্ক ২০১২ তেলেগু চলচ্চিত্রের পুনর্করণ
২০১৬ অঙ্গার (২০১৬ চলচ্চিত্র) ওম,ফাল্গুনি রহমান জলি অপ্যয়া (২০১৩) কন্নড় চলচ্চিত্রের পুনর্করণ
হিরো ৪২০ ওম,নুসরাত ফারিয়া মাজহার,রিয়া সেন মাস্কা (২০০৯) তেলেগু চলচ্চিত্রের পুনর্করণ
শিকারি শাকিব খান,শ্রাবন্তী চট্টোপাধ্যায় অধাবন (২০০৯) তামিল চলচ্চিত্রের পুনর্করণ
নিয়তি আরিফিন শুভ,ফাল্গুনি রহমান জলি° দ্য নোটবুক (২০০৪) আমেরিকান চলচ্চিত্রের পুনর্করণ
রক্ত পরিমনি,জিয়াল রোসান হলিউড চলচ্চিত্র দ্য লঙ্গ কিস গুডনাইট উপর স্বাধীনভাবে ভিত্তি
প্রেম কি বুঝিনি ওম শুভশ্রী গাঙ্গুলি ১০০% লাভ (২০১১) তেলেগু চলচ্চিত্রের পুনর্করণ
২০১৭ প্রেম ও প্রেমি আরিফিন শুভ,নুসরাত ফারিয়া মাজহার হলিউড চলচ্চিত্র লিফ ইয়ার (২০১০)- এর পুনর্করণ
মেয়েটি এখন কোথায় যাবে ফাল্গুনি রহমান জলি ইমাদুল হক মিলনের উপন্যাসের উপর ভিত্তি করে বানানো
ধ্যাততেরিকি আরিফিন শুভ,নুসরাত ফারিয়া মাজহার,জিয়াল রোশান,ফারিন খান ক্যারি অন জাত্তা পাঞ্জাবী চলচ্চিত্রের পুনর্করণ
নবাব শাকিব খান

পরিচালনাসম্পাদনা

চাবি   এই চলচ্চিত্রগুলি এখনও মুক্তি পায়নি
বছর চলচ্চিত্র অভিনয়ে টীকা
২০১৬ বাদশা: দ্য ডন জিৎ, নুসরাত ফারিয়া মাজহার, শ্রদ্ধা দাস বাবা যাদবের সাথে সহ-পরিচালিত
২০১৭ বস ২: ব্যাক টু রুল জিৎ,শুভশ্রী গাঙ্গুলী,নুসরাত ফারিয়া মাজহার বাবা যাদবের সাথে সহ-পরিচালিত

সমালোচনাসম্পাদনা

আবদুল আজিজ ও তার ভাই এম এ কাদের বিদেশে ৯১৯ কোটি টাকা পাচারের অভিযোগে অভিযুক্ত হয়েছেন।[৪][৫] ১লা মার্চ ২০১৯ তারিখে প্রথম আলো'র খবর অনুযায়ী, তিনি বর্তমানে গ্রেফতার এড়াতে পলাতক।[৬]

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "Abdul Aziz publicises alleged affair with Mahiya Mahi | Dhaka Tribune"archive.dhakatribune.com (ইংরেজি ভাষায়)। ২০১৭-০৭-১৯ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১৭-০৪-৩০ 
  2. "Another India-Bangladesh joint production film soon"Prothom Alo। ২০১৭-০৩-২২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১৭-০৪-৩০ 
  3. "Peya pairs up with Soham"Prothom Alo। ২০১৭-০৫-০২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১৭-০৪-৩০ 
  4. "যেভাবে ৯১৯ কোটি টাকা পাচার করে জাজ মাল্টিমিডিয়ার আজিজ"www.poriborton.com। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-০১-৩১ 
  5. "জাজ কর্ণধার আবদুল আজিজের ৯১৯ কোটি টাকা পাচার"Daily Nayadiganta। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-০১-৩১ 
  6. "মুক্তি পেয়েছে জাজের ছবি, কিন্তু আজিজ পলাতক"প্রথম আলো। সংগ্রহের তারিখ ২০১৯-০৩-০১ 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা